বিবর্তন

57

দেলোয়ার হোসেন দুলাল

আমি এক উবর্শী উদ্ভিন্ন যৌবনা নারী
শাড়ীর আঁচলে পিনন্নোত বক্ষ দেহবল্লরী।
মৃগায়ন মুড়ালো গ্রীবা সুবিন্যাস্ত কেশবিন্যাস
নিখিল পুরুষের নির্ঘুম রজনী।
প্রকারান্তরে আমি প্রতিসূভর্তিকা
অন্তরে প্রজ্জ্বলিত অনির্বান শিখা
প্রয়োজন আশু নির্বাপনে।
তসলিমা নাসরিন আমি নই
নিরর্থক লেখনীর ভাষায়
অযুত পৃষ্ঠা জলাঞ্জলী দিবো
জরায়ুর স্বাধীনতায়-।
আমি বাস্তববাদী ক্লিওপেট্রা
বাস্তবতার নিরীক্ষে পথচলা
জরায়ু আমার-অবারিত দ্বার
বিজাতীয় বীর্য্যে নিষিক্ত ভ্রণ
অঙ্কুরিত শতাব্দীর সন্তান
শিকড়ে ওদের জৈন-যানজোয়া পাঠান।
ধর্ষিতা আমি নই
স্বপ্রনোদিত আহ্বানে সংঘটিত যা
কালের বিবর্তনে আজ আমি
ওদেরই মা।

শেয়ার করুন