স্বপ্নের সমাধি : যুক্তরাষ্ট্র গিয়েই লাশ হলো বাবা-ছেলে

0
1
যুক্তরাষ্ট্রে দুর্ঘটনায় নিহত বাবা ও ছেলে - সংগৃহীত

অনলাইন ডেস্ক : উন্নত জীবনযাপনের বড় আশা নিয়ে দেশে স্বজন ছেড়ে অভিবাসী হয়ে যুক্তরাষ্ট্রে এসেছিল পরিবারটি। কিন্তু ১০ দিনের মাথায় একটি সড়ক দুর্ঘটনায় সে আশা চূর্ণ হয়ে গেল। গত ২১ অক্টোবর সন্ধ্যায় এ দুর্ঘটনা ঘটে অ্যারিজোনা অঙ্গরাজ্যে ফিনিক্স সিটি-সংলগ্ন স্যান্ডলারে। এতে মারা যান বাংলাদেশি মোহাম্মদ মিসবাহ উদ্দিন

কাজল (৫০) ও তার ১৩ বছরের ছেলে আবদুল্লাহ উদ্দিন। তাদের বাড়ি লক্ষ্মীপুর জেলায়। খবর এনআরবি নিউজের।

গোয়েন্দা পুলিশ সদস্য শেথ টাইলার জানান, ছেলেকে নিয়ে হেঁটে ইস্টভেলি ইসলামিক সেন্টার মসজিদে মাগরিবের নামাজ আদায়ের জন্য যাচ্ছিলেন কাজল। ইরি স্ট্রিট অতিক্রমের সময়েই তারা দুর্ঘটনায় পতিত হন। কালো রঙের ডজ ডুরঙ্গ গাড়িটি আলমা স্কুল রোড অতিক্রমকালে পথচারী বাবা-ছেলেকে চাপা দিয়ে কেটে পড়ে। ঘটনাস্থলেই কাজলের মৃত্যু হয়। গুরুতর আহত অবস্থায় আবদুল্লাহকে হাসপাতালে নেওয়ার পর দিন সেও মারা যায়। গত বুধবার সকালে ঘাতক চালক মিশেল হেগারম্যানকে (৫৪) গাড়িসহ গ্রেপ্তার করেছে স্থানীয় পুলিশ।

কাজলের বড় ভাই যুক্তরাষ্ট্রপ্রবাসী ডা. ইকবাল উদ্দিন জুয়েল জানান, বুধবার বাদ জোহর ওই মসজিদে জানাজা শেষে মারিকোপা রাহমা গোরস্তানে বাবা-ছেলেকে দাফন করা হয়।

মিসবাহ উদ্দিন কাজল তার ছেলে আবদুল্লাহ, স্ত্রী ও কলেজপড়ূয়া মেয়েকে নিয়ে গত ১২ অক্টোবর পারিবারিক ভিসায় যুক্তরাষ্ট্রে আসেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here